শিক্ষাশ্রয়ী সমাজবিজ্ঞানের প্রকৃতি সম্পর্কে সংক্ষিপ্ত বিবরণ দাও

শিক্ষাশ্রয়ী সমাজবিজ্ঞানের প্রকৃতি শিক্ষাশ্রয়ী সমাজবিজ্ঞান হল শিক্ষাবিজ্ঞান ও সমাজবিজ্ঞানের মিলিত রূপ। শিক্ষাশ্রয়ী সমাজবিজ্ঞানের প্রকৃতি বিশ্লেষণ করলে পরিলক্ষিত হয় যে শিক্ষা ও সমাজতত্ত্বের বা সমাজবিজ্ঞানের মধ্যে একে অপরের দ্বারা পরিপুষ্ট হয়ে গড়ে ওঠে। শিক্ষাশ্রয়ী সমাজবিজ্ঞানের প্রকৃতি যে সমস্ত দিকে পরিলক্ষিত হয়, সেগুলি হল – 1. সামাজিক মিথস্ক্রিয়ামূলক শিক্ষাশ্রয়ী সমাজবিজ্ঞান প্রকৃতিগত দিক থেকে সামাজিক মিথস্ক্রিয়ামূলক। এটি সমাজ জীবনে … বিস্তারিত পড়ুন

সামাজিকীকরনের বৈশিষ্টগুলি উল্লেখ করো

সামাজিকীকনের বৈশিষ্ট :-  ১. একাধিক মাধ্যম :-  ব্যক্তি নিজে নিজেই সামাজিকীকরণ ঘটাতে পারেনা। তাকে এই কাজে সাহায্য করে যেসকল উপাদান – সেগুলিকে বলে সামাজিকীকরণের মাধ্যম। সামাজিকীকরণের প্রধান মাধ্যমগুলি হল – পরিবার , বন্ধুগোষ্ঠী , শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান , গণমাধ্যম , রাষ্ট্র , বিভিন্ন আদর্শ – ইত্যাদি। এইসকল উপাদানগুলি প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষভাবে ব্যক্তির সামাজিকীকরণে সহায়তা করে।  ২. উপাদানগুলির … বিস্তারিত পড়ুন

সামাজিক সংস্থা হিসাবে বিদ্যালয়ের ভূমিকা কি

সামাজিকীকরণের ক্ষেত্রে শিশুকে বিশেষভাবে সাহায্য করে পরিবার (Family), বিদ্যালয় (School) বন্ধু দল, প্রতিবেশী প্রভৃতি। শিশুর সামাজিকীকরণের ক্ষেত্রে বিদ্যালয়ের ভূমিকা অনস্বীকার্য। শিশুর সামাজিকীকরণে বিদ্যালয়ের ভূমিকা (Role of School in Socialization Process) যে সমস্ত দিক থেকে গুরুত্বপূর্ণ, সেগুলি আলোচনা করা হল – 1. বিদ্যালয় পরিবেশে অভিযোজন শিশুর সামাজিকীকরণের ক্ষেত্রে বিদ্যালয়ের অন্যতম ভূমিকা (Role of School in Socialization … বিস্তারিত পড়ুন

মিডিয়ান-এর সুবিধা ও অসুবিধা গুলি লিখো(Write down the advantages and disadvantages of Median)

মিডিয়ান-এর সুবিধা :-(1) গণনা করা এবং বোঝা সহজ ● এটি গণনা করা সহজ এবং বোঝা সহজ। ● অনেক পরিস্থিতিতে, মাঝামাঝি পরিদর্শন দ্বারা অবস্থিত করা যেতে পারে। (2) চরম মান দ্বারা প্রভাবিত হয় না ● এটি চরম মান দ্বারা প্রভাবিত হয় না, যেমন, বৃহত্তম এবং ক্ষুদ্রতম মান কারণ এটি একটি অবস্থানগত গড় এবং মাত্রার উপর নির্ভরশীল … বিস্তারিত পড়ুন

  (Non-Parametric Tests -এর ব্যবহারগুলি লিখো)

1980 এর দশকের শেষের দিকে হংসরাজ কলেজে অর্থনীতিতে অনার্স স্নাতকের গড় বেতন প্যাকেজ ছিল প্রায় 1,000,000 পিএ। 80-এর দশকের প্রথম দিকে বা 90-এর দশকের প্রথম দিকে স্নাতক হওয়া লোকেদের তুলনায় এই সংখ্যা উল্লেখযোগ্যভাবে বেশি। এত উচ্চ গড় হওয়ার কারণ কী হতে পারে? ওয়েল, সর্বোচ্চ বেতনপ্রাপ্ত ভারতীয় সেলিব্রিটিদের একজন, শাহরুখ খান 1988 সালে হংসরাজ কলেজ থেকে … বিস্তারিত পড়ুন

সমাস কাকে বলে ? সমাস কয় প্রকার ও কী কী ? সমাসের যে-কোনো দুটি প্রকারভেদের বিস্তৃত আলোচনা করো।

সমাস কাকে বলে? কত প্রকার ও কী কী? উদাহরণসহ লেখ। দুই বা ততোধিক পদ মিলিত হয়ে এক পদে পরিণত হওয়াকে সমাস বলে। সমাস কথাটির অর্থ সংক্ষেপণ বা একাধিক পদের একপদীকরণ। অর্থের দিক থেকে মিল আছে এমন দুই বা ততোধিক শব্দ মিলে একটি শব্দ হওয়ার প্রক্রিয়াকে সমাস বলে। বাক্যে শব্দের ব্যবহার সংক্ষেপ করার উদ্দেশ্যে সমাসের সৃষ্টি। … বিস্তারিত পড়ুন

প্রত্যয় কাকে বলে ? বাংলা প্রত্যয় বিষয়ে বিশদে আলোচনা করো।

মূল শব্দ বা মৌলিক শব্দের সঙ্গে যে শব্দাংশ যুক্ত হয়ে নতুন নামপদ সৃষ্টি করে তাকেই প্রত্যয় বলে। বাংলা প্রত্যয় দু প্রকার — কৃৎ প্রত্যয় ও তদ্ধিত প্রত্যয়। কোনো ক্রিয়াপদের সঙ্গে যে প্রত্যয় যুক্ত হয় তাকে কৃৎ-প্রত্যয় বলে , যেমন গম্+অনট্ = গমন, শ্রু+অনট্= শ্রবণ, দৃশ+তি= দৃষ্টি, কৃ+তব্য=কর্তব্য ইত্যাদি। তেমনি কোনো নামপদের সঙ্গে যে প্রত্যয় যুক্ত … বিস্তারিত পড়ুন

উদাহরণসহ সংজ্ঞা দাওঃ স্বরসংগতি, সংকর শব্দ, জোড়কলম, বর্ণ বিপর্যয়।

স্বরসঙ্গতি কাকে বলে? স্বরসঙ্গতির উদাহরণ দাও? একটি স্বরধ্বনির প্রভাবের ফলে শব্দের অপর স্বরের যে পরিবর্তন হয় তাকে স্বরসঙ্গতি বলে। অর্থাৎ দুইটি স্বরধ্বনির মধ্যে সঙ্গতি রক্ষার জন্য একটির প্রভাবে আরেকটি পরিবর্তিত হলে তখন তাকে স্বরসঙ্গতি বলি। স্বরসঙ্গতির উদাহরণঃ দেশি > দিশি( এখান দেশি= দে+এ+শ+ই, দিশি= দ+ই+শ+ই)—‘ই’-র প্রভাবে ‘এ’ পরিবর্তিত হয়ে ‘ই’ হয়েছে। মুলা > মুলো স্বরসঙ্গতি … বিস্তারিত পড়ুন

ধ্বনি পরিবর্তনের কারণগুলি উল্লেখ করে এর প্রধান ধারাগুলির সংক্ষিপ্ত পরিচয় দাও।

ভূমিকা:– বাংলা একটা প্রাণবন্ত চলমান ভাষা । বহু বছরের ধীর ও ধারাবাহিক বিবর্তনে বাংলা ভাষার বর্ণ ও সংযুক্ত বর্ণের মূল ধ্বনির নানা পরিবর্তন ঘটেছে । ধ্বনির পরিবর্তনশীলতা বাংলা ভাষাকে আরো আন্তরিক ও প্রাণবন্ত করে তুলেছে । এই পরিবর্তনের পিছনে যে যে কারণগুলি রয়েছে সেগুলি হল —(১) ভৌগোলিক পরিবেশ ও জলবায়ু, (২) উচ্চারণে অসাবধানতা ও উচ্চারণ-কষ্ট … বিস্তারিত পড়ুন

তৎপুরুষ সমাস কাকে বলে ? দৃষ্টান্তসহ আলোচনা করো।

পূর্বপদের বিভক্তির লোপে যে সমাস হয় এবং যে সমাসে পরপদের অর্থ প্রধানভাবে বোঝায় তাকে তৎপুরুষ সমাস বলে। তৎপুরুষ সমাসের পূর্বপদে দ্বিতীয়া থেকে সপ্তমী পর্যন্ত যে কোনো বিভক্তি থাকতে পারে এবং পূর্বপদের বিভক্তি অনুসারে এদের নামকরণ করা হয়। যেমন: বিপদকে আপন্ন= বিপদাপন্ন।

Very important antonyms for previous year and upcoming compitative exams ssc mts, chsl ,cgl ,upsc, nda many more exams. Our team dm developments north west. Social and preventive pharmacy 8th semester notes pdf download.